• ঢাকা
  • রবিবার:২০২৪:এপ্রিল || ০৫:৪৩:৩৬
প্রকাশের সময় :
মে ৩০, ২০২২,
৭:০০ অপরাহ্ন

সর্বশেষ আপডেট :
মে ৩০, ২০২২,
৭:০০ অপরাহ্ন

৩৫৩ বার দেখা হয়েছে ।

ধুনটে ধর্ষকের শাস্তি চেয়ে বিএম টিচার্স অ্যাসোসিয়েশনের মানববন্ধন

ধুনটে ধর্ষকের শাস্তি চেয়ে বিএম টিচার্স অ্যাসোসিয়েশনের মানববন্ধন
বগুড়ার ধুনটে স্কুলছাত্রী ধর্ষণের মামলায় কারাগারে অন্তরীণ কলেজ শিক্ষক মুরাদুজ্জামান মুকুলের দৃষ্টান্ত মূলক শাস্তির দাবিতে মানববন্ধন করেছে উপজেলা বিএম টিচার্স অ্যাসোসিয়েশন। ধর্ষক মুরাদুজ্জামান মুকুল উপজেলার জালশুকা হাবিবুর রহমান ডিগ্রি কলেজের সাময়িক বহিস্কৃত শিক্ষক ও শৈলমারী গ্রামের মৃত মতিউর রহমানের ছেলে।
সোমবার (৩০ মে) দুপুরে উপজেলা বিএম টিচার্স অ্যাসোসিয়েশন এর আহ্বায়ক সাংবাদিক জাহিদুল ইসলাম ও যুগ্ন আহ্বায়ক সাংবাদিক জিয়াউল হক এর আহ্বানে ধুনট বাজার জিরো পয়েন্টে সংঘটিত মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন সংগঠনের সদস্য তোজাম্মেল হক, গোলাম আজম রয়েল সহ কলেজ শিক্ষক শিরিনা সুলতানা, তালেব আলী, অধ্যক্ষ আব্দুস ছালাম, ল্যাব সহকারী বিউটি দে প্রমুখ। মানববন্ধনে উপস্থিত শিক্ষক ও শিক্ষার্থীরা ধর্ষক মুরাদুজ্জামান মুকুলের ফাঁসির দাবি সহ দৃষ্টান্ত মূলক শাস্তি চেয়ে মিছিল করেন। মিছিলটি বাজার প্রদক্ষিন শেষে ধুনট পাইলট বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় ও কলেজ প্রাঙ্গণে এসে শেষ হয়।
মানববন্ধনে উপস্থিত ছিলেন ধুনট পাইলট বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় ও কলেজের শিক্ষক আমিনুল ইসলাম, মোকছেদুল হাসান ফারুক, জিন্নাতুন ইসলাম, তপন কুমার দেব, শামীম আহমেদ, আনারপুর টেকনিক্যাল এন্ড বি এম কলেজের শিক্ষক রফিকুল ইসলাম, রন্জুবুল আলম, প্রদর্শক আব্দুল হান্নান, অফিস সহকারী তাবজিদুল আলম সবুজ। হাজী কাজেম টেকনিক্যাল এন্ড বি এম কলেজের শিক্ষক শহিদুল ইসলাম, সাইদুজ্জামান, নাসির উদ্দীন, সাইফুল ইসলাম, হাবিবুর রহমান তোতা,লুৎফর রহমান, আমিনুল ইসলাম প্রমুখ।
উল্লেখ্য যে, গত ১২ মে মুরাদুজ্জামান মুকুলের বিরুদ্ধে স্কুলছাত্রী ধর্ষণের অভিযোগে মামলা করেন ছাত্রীর মা। মামলা সুত্রে জানা যায়, লম্পট মুরাদুজ্জামান মুকুল বাদিনীর বাসায় ভাড়া থাকতেন। সেই সুবাদে তার মেয়ের সঙ্গে একদিন মোবাইলে জোরপূর্বক ছবি তেলেন। এই ছবি দেখিয়ে ব্লাকমেইল করে ধর্ষণ করেও ভিডিও ধারণ করে রাখেন। পরে ওই ভিডিও ভাইরাল করে দেওয়ার  ভয় দেখিয়ে একাধিকবার ধর্ষণ করেন। গত ২৪ মে হাবিবুর রহমান ডিগ্রি কলেজের পরিচালনা পর্ষদের সভায় ধর্ষক মুরাদুজ্জামান মুকুলকে সাময়িক বরখাস্ত করেন।